প্রথম সন্তানকে হারিয়ে ভেঙে পড়েছিলেন কাবো, সেই কষ্ট বুকে চেপে রেখেই এবার সুখবর! ঘরে আসছে নতুন সদস্য

জীবনে যত বড়ই কষ্ট আসুক না কেনো, একজন ব্যক্তি নিজের সদ্যজাত সন্তান হারানোর কষ্ট কখনোই ভুলতে পারে না। প্রায় একটা বছর কত সাবধানে কত ভালোবাসা দিয়ে একটা শিশুকে যত্ন করে বড় করে তোলার পর যখন সে ভূমিষ্ঠ হয় তখন একজন মা বাবার আনন্দের সীমা থাকে না। এক বছর আগে এই ভালোবাসার ফসলকেই হারিয়ে ফেলেছিলেন সারেগামাপা (Sa Re Ga Ma Pa 2023) বিজেতা।

২০২৩ সালের ৪ঠা জুলাই আকাশ ভেঙে পড়েছিল সারেগামাপা জয়ী এই গায়ক ও তাঁর পরিবারের মাথর উপর। এক অন্ধকার নেমে এসেছিল তাদের জীবনে। ৮ মাস বয়সী প্রায় সদ্যজাত কন্যা সন্তানকে হারিয়েছিলেন জি বাংলা সারেগামাপা খ্যাত সঙ্গীতশিল্পী। এই সন্তানের মৃত্যু শোকে আচ্ছন্ন শিল্পী সারেগামাপা-র মঞ্চে নিজের কষ্টমাখা সুর দিয়ে মন জয় করেছিলেন লক্ষ লক্ষ শ্রোতার। সবসময় নিজের স্বামীর হাত শক্ত করে ধরেছিলেন শিল্পীর স্ত্রী।

এই সঙ্গীত শিল্পী সেই সময় একটি পোস্টে লিখেছিলেন, “গল্পটা হয়তো শেষ হয়েছে, কিন্তু যাত্রাটা নয়। তুমি আমাদের জীবনের সবথেকে সুরেলা অধ্যায় হয়ে থাকবে সারাজীবন। আমাদের জীবনের ধ্রুবতারা হয়ে এভাবেই পথ দেখাও। যেখানেই থেকো ভালো থেকো।” সমাজ মাধ্যমের পাতায় একমুহূর্তে সেই পোস্ট ভাইরাল হয়ে যায়। বর্তমানে এই শোক কাটিয়ে নতুন সূর্যের মুখ দেখতে চলেছেন তিনি।

কথা হচ্ছে জি টিভির সারেগামাপা এর শ্রেষ্ঠ গায়ক অ্যালবার্ট কাবোকে(Albert Kabo) নিয়ে। সোশ্যাল মিডিয়ায় মেয়েকে নিয়ে কাবোর পোস্ট কম বেশি সকলেরই চোখে পড়তে বাধ্য। জন্মের পরই অ্যালবার্ট কন্যা এভিলিন-এর হার্টের সমস্যা ধরা পড়েছিল। শহরের এক বেসরকারি হাসপাতালে তার চিকিৎসা চলছিল। তবু শেষরক্ষা হয়নি। সেই যন্ত্রণা বুকে নিয়েই নতুন করে বাঁচার জন্য একটা আশার আলো দেখলেন কাবো ও তাঁর স্ত্রী।

আরও পড়ুন:বেশ কয়েক বছর পার করতেই পর্ণা সৃজনের মেয়ের চরিত্রে জনপ্রিয় অভিনেত্রী! আবার জমজমাট নিম ফুলের মধু!

আরোও একবার মা হতে চলেছেন অ্যালবার্ট পত্নী পূজা। স্ত্রীর অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর নিজেই সকলকে দেন এই সঙ্গীত শিল্পী। শুধু তাই নয়, আসন্ন সন্তান এবং স্ত্রী পূজাকে নিয়ে একটি সুন্দর ছবিও সমাজ মাধ্যমের পাতায় পোস্ট করেন তিনি। তিনি লেখেন, “তিনি সবকিছু তাঁর মতো করে সুন্দর করে তুলেছেন। সকলকে ধন্য আমাদের আশীর্বাদ ও প্রার্থনা করার জন্য। খুব শীঘ্রই আমাদের পরিবারে নতুন অতিথি আসছে।”

Back to top button