সাংবাদিকদের চরম অপমান করলেন কাঞ্চন শ্রীময়ী! গেটের সামনে বড় বোর্ড “সাংবাদিকদের প্রবেশ নিষেধ!”

ডিভোর্স পাওয়ার অপেক্ষা করছিলেন অভিনেতা। সেটা পেতেই বিয়ে করেছেন টলিউডের (Tollywood) বিতর্কিত জুটি বিধায়ক-অভিনেতা কাঞ্চন মল্লিক (Kanchan Mallick) ও অভিনেত্রী শ্রীময়ী চট্টরাজ। এখন সমাজমাধ্যমের পাতা জুড়ে শুধুই তাঁদেরই বিয়ের পোস্ট। গত এই ১৪ ফেব্রুয়ারি অর্থাৎ ভালোবাসা দিবসের দিনই আইনি বিয়ে সেরে ফেলেছিলেন শ্রীময়ী-কাঞ্চন।

এর আগে শ্রীময়ী এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন এই বিয়েটা আগেই হত, তাঁদের বিয়েটা এই ডিভোর্সের জন্যই আটকে ছিল। জানা গিয়েছিল মার্চ এর শুরুতেই নাকি সামাজিক আচার অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে একসাথে থাকার অঙ্গীকার নেবেন তারা। আর সেই কথা মাফিক ধুমধাম করে নিজের তৃতীয় বিয়ে সেরে ফেললেন অভিনেতা তথা রাজনীতিবিদ কাঞ্চন মল্লিক। গতকাল ছিল তাদের বিয়ের রিসেপশন।

গত ১০ জানুয়ারি পাকাপাকি ভাবে কাঞ্চনের সঙ্গে তাঁর দ্বিতীয় স্ত্রী পিঙ্কি বন্দ্যোপাধ্যায়ের আইনত ডিভোর্স হয়। ডিভোর্সের পরেই আবার বিয়ে! এই নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই বেশ সমালোচিত হচ্ছিলেন বিধায়ক তথা অভিনেতা কাঞ্চন মল্লিক। তবে এইবার তাকে নিয়ে উঠলো নতুন সমালোচনার ঝড়। রিসেপশনে বাড়ির গেটের সামনে থাকা হোর্ডিং-এ তার লেখা কিছু অপমানজনক মন্তব্য রাতারাতি একেবারে সোরগোল ফেলে দিয়েছে নেট মাধ্যমে।

কাঞ্চন শ্রীময়ীর রিসেপশনে উপস্থিত ছিলেন অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তি। ছিলেন বহু অনেক তারকা। তবে যাদের উপস্থিতি অভিনেতা একেবারেই চাননি তাদের নাম স্পষ্ট করেই তিনি সেই হোল্ডিং-এ উল্লেখ করেন। সেখানে লেখা ছিল, “press and personal security and drivers are not allowed”, যার বাংলা তরজমা করলে দাঁড়ায় – সংবাদমাধ্যম সুরক্ষা কর্মী এবং গাড়ির চালকেরা প্রবেশ করতে পারবেন না।

আরো পড়ুন: টিআরপিতে অনেক বড় চমক! জগদ্ধাত্রীকে পিছনে ফেলে বেঙ্গল টপার হল নিম ফুলের মধু

গণতন্ত্রের এই চতুর্থ স্তম্ভের অপমান মেনে নিতে পারেনি নেটমাধ্যম। ছবিটি সবার সামনে আসতেই এর বিরোধিতা করে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম সহ দর্শক মহল। তাদের মতে, ঔদ্ধত্য বেড়ে গিয়েছে অভিনেতার যার ফলে যোগ্য ব্যক্তিদের সম্মান করতে ভুলে গিয়েছেন তিনি। তার এমন মন্তব্যে বেশ ক্ষিপ্ত হয়েছেন বহু তারকা।

Back to top button