অনিন্দ্যকে অনুষ্ঠানে নিয়ে গিয়ে এবার বাবা মেয়ের সম্পর্ক ভাঙবে ময়ূরী! অন্যদিকে সন্দেহবাতিক নীলকে ভরকে দিল সে!

জি বাংলা (Zee Bangla) চ্যানেলে সম্প্রচারিত একটি চর্চিত এবং জনপ্রিয় ধারাবাহিক হচ্ছে ইচ্ছে পুতুল (Ichhe Putul)। এখানে নায়িকা চরিত্রে অভিনয় করছেন তিতিক্ষা দাস (Titiksha Das), এবং নায়ক হিসেবে মৈনাক ব্যানার্জী। খলনায়িকা চরিত্রে দেখা যাচ্ছে শ্বেতা মিশ্রকে। এইবার মেঘকে শায়েস্তা করতে বড়ো সর প্ল্যান করলো ময়ূরী।

ধারাবাহিকের বর্তমান প্লট অনুযায়ী, ময়ূরী মেঘের ক্ষতি করার জন্য একটা পাগলের মতন উপায় খুঁজে বেড়াচ্ছে। তাই শেষমেষ রূপের সাথে হাত মেলায় সে। ময়ূরী রূপকে একটা প্ল্যানের কথা বলে যেটা বেশ পছন্দ হয় রূপের। এবার সেটা বাস্তবায়িত করতেই উঠেপড়ে লেগেছে রূপ আর ময়ূরী।

ধারাবাহিকের এই দিনের পর্বে দেখা যায়, নীলকে মেঘ শেষবারের মতন খুব ভালো করে বুঝিয়ে দেয় যে মেঘ সেদিন যেটা করেছিল সেটা নেহাতই কৃতজ্ঞতার জন্য আর সেই কৃতজ্ঞতার কারণটাও নীলকে খুলে বলে মেঘ। এরপর মীনাক্ষীও নীলকে বোঝায়, মেঘের না ফেরার সিদ্ধান্তকে এবার সম্মান জানানোর পালা চলে এসেছে, আর হয়তো তাকে জোর না করাটাই মঙ্গল। কিন্তু নীলের মন কিছুতেই মানতে চায় না।

অন্যদিকে রায়চক যাওয়ার ব্যাপারে বেশ অস্বস্তিতে পড়ে মেঘ। সে কোনোভাবেই মন থেকে সেভাবে যেতে চায়না। কিন্তু জিষ্ণু তাকে বোঝায়, মেঘ বেশি ভাবছে। এরপর জিষ্ণুকে নিয়ে নিজের বাড়ি চলে যায় মেঘ। আর এই দৃশ্যটা দেখিয়েই ময়ূরী নীলকে ভুল বোঝানোর চেষ্টা করে। মেঘ আর জিষ্ণু রায় চকে গিয়ে ঠিক কি কি করবে সেই নিয়ে নীলের মনে সন্দেহ ঢুকিয়ে দিতে চায় ময়ূরী।

মেঘের মা মধুমিতা অনিন্দ্যকে বলে, সে যদি না যায় তাহলে মেঘ কে এতো দূরে, গান করতে পাঠাবে না মধুমিতা। এদিকে ময়ূরীও বেশ চিন্তায় পড়ে যায় কারণ অনিন্দ্য না গেলে মেঘের চরিত্র তার বাবার সামনে খারাপ করা যাবে না। শেষ মেশ আলোচনায় যা দাড়ায় তাতে ময়ূরী বেশ খুশি হয়। মেঘকে মুখ কালো করে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখার জন্য উৎসুক হয়ে থাকে সে।

Back to top button