খুব তাড়াতাড়ি কথার কাছে হারতে চলেছে জ্যাস সান্যাল! কয়েক নম্বরে পিছিয়ে কথা, আজকের টিআরপি দেখে আশঙ্কা ভক্তদের!

কোন ধারাবাহিক অনন্তকাল ধরে নিজের জায়গা ধরে রাখতে পারে না। একটা নির্দিষ্ট সময়ের পর সেই ধারাবাহিকের আকর্ষণীয়তা কমতে থাকে দর্শকদের চোখে। আর তারপর ধীরে ধীরে নিজের জায়গা হারাতে শুরু করে সেই একালীন জনপ্রিয় মেগা। আর ঠিক এমনটাই হচ্ছে জি বাংলার (Zee Bangla) নাম্বার ওয়ান ধারাবাহিক জগদ্ধাত্রীর (Jagaddhatri) সাথে। আর এই কথা যে সত্য সেটা প্রকাশিত টিআরপি থেকে সহজেই প্রমাণ পাওয়া যায়।

একটা সময় ছিল যখন জলসার অনুরাগের ছোঁয়া এবং জী বাংলার জগদ্ধাত্রী এই দুই ধারাবাহিকের মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই লেগে থাকত। কোন এক সপ্তাহ অনুরাগের ছোঁয়া বেঙ্গল টপার হতো, আবার পরের সপ্তাহে দেখা যেত সেই জায়গা দখল করেছে জগদ্ধাত্রী। এমন ভাবে চলতে চলতে সিংহাসনে বসে জগদ্ধাত্রী আর দীর্ঘ কয়েক সপ্তাহ সেই জায়গা অবিচল থাকে। কিন্তু সম্প্রতি ২-৩ সপ্তাহ যাবত এই টিআরপিতে বদল ঘটেছে।

কয়েক সপ্তাহ আগেই প্রথম থেকে দ্বিতীয় এবং তারপরে সোজা তৃতীয় স্থানে নেমে এসেছে এই ধারাবাহিক। যদিও প্রথম এবং দ্বিতীয় এই দুই স্থানেই অবস্থান করছে জি বাংলার অন্য দুই মেগা তবুও সবার থেকে এক সময়ে অনেক উঁচুতেই অবস্থান করতে জগদ্ধাত্রী। প্রত্যেকেই তাকে ধরা ছোঁয়ার বাইরে ছিল। তবে এই মুহূর্তে এক নতুন ভয় ঘিরে ধরেছে এই ধারাবাহিকের কর্তৃপক্ষকে।

প্রথম অথবা দ্বিতীয় স্থানে না থাকলেও এই ধারাবাহিকটিকে আজ পর্যন্ত কখনোই স্লট হারা হতে হয়নি বা সেটা যাওয়ার চিন্তায় দিন গুনতে হয়নি। প্রথম স্থান এ নাও থাকতে পারলেও সর্বদা স্লট জিতেছে এই মেগা। তবে এইবার জলসার কথা ধারাবাহিক থেকে রীতিমতো ভয় পাচ্ছে চ্যানেল কর্তৃপক্ষ। কারণ জগধাত্রীর কাঁধে নিঃশ্বাস ফেলছে স্টার জলসার কথা। চলতি সপ্তাহে আবারো প্রথম ৫ এ উঠে এসেছে এই ধারাবাহিক।

আরো পড়ুন: শুটিং সেটেই সাংঘাতিক চোট পেয়ে গুরুতর আহত অভিনেত্রী কয়েল মল্লিক! কী হয়েছে তার? এখন কেমন আছেন তিনি?

এই সপ্তাহে জগদ্ধাত্রীর প্রাপ্ত নম্বর ৭.৮ এবং কথার প্রাপ্ত নম্বর ৭.০। মাত্র ০.৮ নম্বরে পিছিয়ে রয়েছে কথা। যেটা অত্যন্ত সামান্য। বর্তমানে যেভাবে কথার জনপ্রিয়তা ছড়িয়ে পড়ছে তাতে ভক্তদের ধারণা আর দুই একটা সপ্তাহের মধ্যেই জগদ্ধাত্রীকে স্লটহারা করবে কথা। অর্থাৎ স্টার জলসার অনুরাগের ছোঁয়ার মতন খুব তাড়াতাড়ি ব্রাত্য হতে চলেছে জি বাংলার এককালীন বেঙ্গল টপার ধারাবাহিক জগদ্ধাত্রী।

Back to top button