সমালোচনার মুখে পড়ে কার কাছে কই মনের কথা ধারাবাহিকে এলো অনেক বড় পরিবর্তন, আসছে নতুন টুইস্ট

বধূ নির্যাতন থেকে শুরু করে মানসিক অত্যাচার সবকিছু নিয়েই কটাক্ষের মুখে পড়েছিল কার কাছে কই মনের কথা এবার গল্পে আনা হলো পরিবর্তন

জি বাংলায় (Zee Bangla) সম্প্রতি, শুরু হয়েছে ‘কার কাছে কই মনের কথা’ (Kar Kache Koi Moner Kotha) ধারাবাহিক। এই ধারাবাহিকে মূলত ৫ নারীর বন্ধুত্বের গল্প দেখা যাবে। যারা একই পাড়ায় থাকে। তাদের প্রত্যেকের জীবনেরও আলাদা আলাদা গল্প রয়েছে। সেই নিয়েই এগিয়ে চলেছে এই ধারাবাহিক। এখানে মুখ্য চরিত্র শিমুল। যে বিয়ে হয়ে শ্বশুর বাড়িতে যেন এক ভীষণ অন্যরকম জগতে এসে পড়েছে।

শ্বশুরবাড়িতে তার সবেতেই মানা। খেতে, শুতে, বসতে, কাজ করতে, নিজের ভালোলাগার কিছুকে প্রাধান্য দিলেও তার শাশুড়ির তাতে ভীষণ অমত। এমনকি শিমুল (Shimul)-কে রান্নাঘর পর্যন্ত ছাড়তে চাননা তিনি। তারপরেও সব কিছু শিমুল মুখ বুঝে সবকাজ করে দিলেও তার উপর অত্যাচারের মাত্রা কমেনা তার শাশুড়বাড়ির।

শুরু থেকেই এই ধারাবাহিকে যা দেখানো হচ্ছে তার সাথে বাস্তবের বেশ মিল পাচ্ছেন দর্শক। আর তাই বারংবার এই ধারাবাহিক পড়েছে সমালোচনার মুখে। ফুলশয্যার খাটে মায়ের ঘুমানো থেকে পরাগের জোর করে শিমুল (Shimul)-এর উপর আধিপত্য জাহির করা, এমনকি তার গায়ে হাত পর্যন্ত তুলতে যাওয়াতে বেজায় চটেছেন দর্শক।

Bengali serial

দর্শকদের কথায়, গল্পে যতই বাস্তবতা থাকুকনা কেন বিনোদনের নামে এভাবে বধূ নি’র্যা’তন মেনে নেওয়া যায়না। গায়ে হাত তোলা, খারাপ ভাবে টর্চার করা এই সমস্ত না দেখিয়েও বাস্তবতাকে তুলে ধরা যায়। ধারাবাহিকের বর্তমান দৃশ্যগুলি সমালোচনার শিকার হচ্ছে দর্শকদের। বারংবার এই ধারাবাহিক বন্ধের দাবিতে সরব হয়েছেন দর্শক।

তাই সম্প্রতি, গল্পের মোড় কিছুটা ঘুরছে বলেই মনে হচ্ছে। যে শিমুলে (Shimul)-র শাশুড়ি তার সাথে দুদন্ড ভালো কথা বলতেই পারেনা সে নিজের মনের কথা খুলে বলছে তার অপছন্দেরই বৌমার কাছে। শিমুলের কথায় খেতেও বসেছেন তিনি। খেতে খেতে শিমুলের সাথে সুখ দুঃখের গল্প ভাগ করে নিয়েছে তার শাশুড়ি। শুধু তাই নয় শিমুলকে মোচার ঘন্ট অবদি করে খাওয়াবে বলেছেন তার শাশুড়ি মা। এত তাড়াতাড়ি এই মানুষটার মধ্যে এত বড় পরিবর্তন দেখতে পাবেন বলে আশা করেননি দর্শকরা। নিঃসন্দেহে এটি দর্শকদের কাছে একটি অনেক বড় টুইস্ট।

Back to top button