অভিনয় জগতে নামল শোকের ছায়া! প্রয়াত জাতীয় পুরস্কার জয়ী অভিনেতা, শোকবার্তা পাঠালেন মুখ্যমন্ত্রী

অভিনয় জগতে ফের শোকের ছায়া। তারাদের দেশে পা রাখলেন বর্ষীয়ান অভিনেতা। কিছুদিন আগেই জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রীলা মজুমদারের (Sreela Majumdar) মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ ছিল টলিউড। এরমধ্যে ফের অভিনেতার মৃত্যুতে চোখে জল কলাকুশলীদের। জাতীয় পুরস্কার জয়ী অভিনেতার প্রয়ানে শোকের মেঘ ঘনাল সিনে ইন্ডাস্ট্রিতে।

প্রায় বছর তিনের বেশি সময় দুরারোগ্য ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে অবশেষে গত শনিবার ২৭ জানুয়ারি কলকাতায় শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন অভিনেত্রী শ্রীলা মজুমদার। অভিনেত্রীর মৃত্যুকালীন বয়স ছিল ৬৫ বছর। এর আগেও দুরারোগ্য ব্যাধিকে পরাস্ত করেছিলেন অভিনেত্রী। এবারেও জীবন যুদ্ধে জয়ী হবেন বলেই আশা করেছিলেন। কিন্তু শেষপর্যন্ত তা আর হয়নি। অভিনয়ের স্মৃতিকে বুকে আঁকড়ে না ফেরার দেশে পা রাখেন স্বর্ণযুগের অভিনেত্রী শ্রীলা মজুমদার।

অভিনেত্রী শ্রীলার মৃত্যুতে যখন ভেঙে পড়েছে টলি পাড়া, তার মধ্যেই ফের দুঃসংবাদ এল আর এক বিখ্যাত অভিনেতা ও পরিচালকের মৃত্যু সম্পর্কে। শুক্রবার মুম্বাইয়ে মারা যান অভিনেতা পরিচালক সাধু মেহের। তাঁর মৃত্যুকালীন বয়স ছিল প্রায় ৮৪ বছর। একইসঙ্গে হিন্দি ও উড়িয়া ছবিতে দাপটের সঙ্গে অভিনয় করেছিলেন সাধু মেহের। তাঁর প্রতিটি কাজ দর্শকদের অন্তর ছুঁয়ে যায়।

নিজ কর্মজীবনে মৃণাল সেন, তপন সিনহা, বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত, সন্দীপ রায়ের মতো বাঙালি পরিচালক দের সঙ্গে কাজ করেছেন সাধু মেহের। উড়িয়া ও হিন্দি সিনেমার মতোই বাংলা ইন্ডাস্ট্রিতেও তাঁর উপস্থিতি বিশেষ উজ্জ্বল। শ্যাম বেনেগালের ‘অঙ্কুর’ ছবিতে অভিনয়ের সুবাদে জাতীয় পুরস্কার জয়ী হন সাধু মেহের। তিনি ওড়িশার প্রথম শিল্পী হিসেবে জাতীয় পুরস্কার পেয়েছিলেন।

Sadhu Meher

আরও পড়ুনঃ বিয়ে হচ্ছে মেঘের, জানতে পেরে নিজেও বিয়েতে রাজি হয়ে গেলো নীল! শেষবার মেঘকে বিদায় জানালো সে

Bollywood

বড় পর্দায় অভিনয়ের পাশাপাশি টেলিভিশনেও দেখা যায় তাঁকে। জনপ্রিয় টেলি সিরিজ ‘ব্যোমকেশ বক্সী’-র একাধিক এপিসোডে দেখা মিলেছিল বর্ষীয়ান অভিনেতা সাধু মেহেরের। ২০১৭ সালে অভিনেতার হাতে চতুর্থ সর্বোচ্চ নাগরিক সম্মান পদ্মশ্রী তুলে দেয় ভারত সরকার। জনপ্রিয় অভিনেতার মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ ওড়িশা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি। ওড়িশা মুখ্যমন্ত্রী জানান, “অভিনেতা সাধু মেহেরের প্রয়াণ ওড়িয়া ফিল্ম জগতের অপূরণীয় ক্ষতি।”

Back to top button