সত্যের মুখোমুখি নীল ও সন্ধ্যা! পিসি ঠাম্মির চক্রান্তে সকলের সামনে হাজির তারা, এবার কোন দিকে মোড় নেবে নীল তারা সন্ধ্যার জীবন!…

এই মুহূর্তে স্টার জলসার (Star jalsha) পর্দায় সম্প্রচারিত একটি জনপ্রিয় ধারাবাহিক (Bengali Serial) হচ্ছে সন্ধ্যা তারা (Sandhya Tara)। এই ধারাবাহিকের নায়িকা হিসেবে অভিনয় করেছেন অন্বেষা হাজরা, এবং নায়ক হিসেবে রয়েছেন সৌরজিত ব্যানার্জি। ত্রিকোণ প্রেম নিয়ে গল্পের শুরু হলেও ধীরে ধীরে নায়ক নায়িকার মধ্যে গড়ে উঠছে সখ্যতা। ধারাবাহিকের দ্বিতীয় নায়িকা হিসেবে অভিনয় করেছেন অমৃতা দেবনাথ।

সম্প্রতি ধারাবাহিকের প্লট অনুযায়ী দেখা যায় আকাশকে খুঁজতে খুঁজতে তারার হোস্টেলে চলে আসে সন্ধ্যা। এরপর তারা কোনভাবে সবকিছুকে সামলে নেয়। অন্যদিকে আকাশ সন্ধ্যাকে বুঝিয়ে সুজিয়ে বাড়ি নিয়ে যাওয়ার জন্য গাড়িতে তোলে। কিন্তু সেখানেই আবারও বচশা বাধে তাদের মধ্যে।

আকাশের কথা শুনে রেগে যায় সে আর তারপর সন্ধ্যা গাড়ি থেকে নেমে ছুটতে থাকে ফলে ভয়ঙ্কর এক্সিডেন্ট হয় তার। সন্ধ্যাকে বাঁচানো মুশকিল হয়ে যায়। সন্ধ্যার অবস্থা এতটাই খারাপ হয়ে যায় যে তাকে রক্ত দেওয়ার জন্য ডোনার অব্দি খুঁজে পাওয়া যায় না। তাই সমস্ত কিছুকে উপেক্ষা করে সন্ধ্যাকে রক্ত দিতে ছুটে আসে তারা।

কিন্তু ততক্ষণে আকাশ সন্ধ্যাকে রক্ত দেবে বলে মনস্থির করে ফেলে। আকাশের সূচে প্রচন্ড ভয় লাগে। রীতিমত ব্লাড প্রেসার বেড়ে যায় তার। কিন্তু তা সত্ত্বেও নিজের সমস্ত ভয়কে জয় করে সন্ধাকে রক্ত দেয় আকাশ। এরপর সুস্থ হয়ে ওঠে সে। অবশেষে মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরে আসে সন্ধ্যা।

সম্প্রতি প্রকাশ পেয়েছে এই ধারাবাহিকের একটি নতুন প্রোমো। এই প্রমোতে দেখা গিয়েছে, বিজয়া সন্ধ্যাকে বলছে একেবারে মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরে এসেছে সে তাই আজ সে যা চায় তাই পাবে। এই শুনে আকাশ সন্ধ্যাকে জিজ্ঞাসা করে তার কি আকাশের চাঁদ চাই? সন্ধ্যা বলে তার তারা চাই। এমন সময় আকাশের পিসি ঠাম্মি টানতে টানতে তারাকে ঘরে নিয়ে আসে। তাকে দেখে অবাক হয়ে যায় সন্ধ্যা। ভয় পেয়ে যায় আকাশ। তবে কি এবার ফাঁস হয়ে যাবে সবকিছু?

Back to top button