পর্ণাকে ডিভোর্স দিতে নাজেহাল বাবু ও বাবুর মা! খোরপোষের সংখ্যা শুনে জ্ঞান হারালো কৃষ্ণা

জি বাংলার (Zee Bangla) পর্দায় যে সমস্ত ধারাবাহিক রমরমিয়ে চলছে তার মধ্যে অন্যতম জনপ্রিয় ধারাবাহিক হলো নিম ফুলের মধু (Neem Phuler Modhu)। সাধারণ ফ্যামিলি ড্রামা নিয়েই তৈরি হয়েছে ধারাবাহিকের প্লট। ধারাবাহিকটি দেখতে বেশ পছন্দ করেন দর্শক মহল। এই ধারাবাহিকের নায়িকা হল জনপ্রিয় অভিনেত্রী পল্লবী শর্মা। নায়ক হিসেবে অভিনয় করছেন রুবেল দাস।

বর্তমানে প্রেম করছে রুচিরা আর চয়ন। রুচিরা হচ্ছে পর্ণার বন্ধু এবং চয়ন হচ্ছে পর্ণার দেওর। রুচিরা আর চয়নের মধ্যে কিছু একটা রয়েছে এটা জানতে পেরে যায় ঈশা আর মৌমিতা। তাদেরকে একসাথে ধরবে বলে অনেক প্ল্যানও করে তারা।

প্রথম কয়েকবার অসফল হয় তারা কিন্তু পর্ণার সাথে চয়ন আর বর্ষার বলা কথাগুলো লুকিয়ে লুকিয়ে শুনে নেয় মৌমিতা আর সেগুলো এসে বলে দেয় ঈশাকে। ঈশা মৌমিতাকে বোঝায় পর্ণা আসার পর একই তার দাম কমে গেছে এবার যদি রুচির আসে তাহলে আর কেউ পাত্তা দেবে না মৌমিতাকে।

তাই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব এই পুরো বিষয়টা একটু অন্যরকম ভাবে বাড়ির সবার কাছে প্রেজেন্ট করতে হবে। তারা দলে টেনে নেয় কৃষ্ণাকে। এরপর সবাই মিলে প্ল্যান করে পর্ণার সমস্ত পরিকল্পনায় জল ঢেলে দেয়। নিজের স্ত্রীর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ায় সৃজন। সে বলে যদি রুচিরা আর চয়নের বিয়ে হয় তাহলে তার সাথে পর্ণার আর কোন সম্পর্ক থাকবে না।

কিন্তু এই ভয় পিছিয়ে আসেনি পর্ণা। যার দরুন সৃজন তার বলা কথাগুলোকে বাস্তবে রূপান্তরিত করে। সম্প্রতি এই ধারাবাহিকের একটি নতুন প্রোমো ভিডিও সম্প্রচারিত হয়। যেখানে দেখা যায় ডিভোর্স পেতে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছে সৃজন। সেখানে পর্ণা বলে ডিভোর্স সে দেবে কিন্তু এর বদলে তার খোরপোষ চাই। সে এত বড় লিস্ট খুলে দেয় সৃজনের সামনে যা দেখে মাথা ঘুরে পড়ে যায় কৃষ্ণা। পর্ণার দাবি মিটিয়ে সৃজন কি পারবে ডিভোর্স দিতে?

Back to top button