প্রমাণ জোগাড় করেও মালিনী ব্যানার্জির কাছে হেরে গেল তিতির! প্রমাণ নিয়ে ধুন্ধুমার আজকের পর্বে

প্রমাণ নষ্ট করতে তিতিরের ফোন ভেঙে দিল মালিনী, মন দিতে চাই এর আগামী পর্ব ফাঁস

জি বাংলা চ্যানেলে (Zee Bangla) যে সমস্ত ধারাবাহিক গুলি নিত্যদিন সম্প্রচারিত হয় তার মধ্যে অন্যতম হলো মন দিতে চাই ধারাবাহিকটি। এই বছরের জানুয়ারি মাসেই সম্প্রচার হওয়া শুরু হয়েছে ‘মন দিতে চাই’ (Mon Dite Chai)। টিআরপিতে তেমন ভালো ফল করতে না পারলেও, ধীরে ধীরে দর্শকদের মধ্যে জায়গা করে নিচ্ছে এই ধারাবাহিক। এই ধারাবাহিকে যে জুটি অভিনয় করছেন অন্য কোন ধারাবাহিকে এই জুটিকে অভিনয় করতে দেখা যায়নি।

আসলে রিপোর্ট জানতে নার্স রূপে তিতির

নায়িকা নিজে তুলিকে সাথে করে নিয়ে গিয়ে তুলির প্রেগনেন্সি টেস্ট করায়। রিপোর্ট জানতে হসপিটাল এ ফোন করলেই সে জানতে পারে সেটা পজেটিভ কারণ আগের থেকেই সোমরাজের সৎ মা টাকা খাইয়ে সেই ব্যবস্থা করে রেখেছিলেন। এবার আসল সত্যিটা জানতে নিজেই নেমে পরে মাঠে। নার্স রূপে ঢুকে পড়ে হসপিটালের ল্যাবরেটরিতে।

আসলে রিপোর্টটা পেয়ে যায় তিতির

কোথাও গিয়ে তিতির মনে মনে বিশ্বাস করতো সোমরাজ এই কাজটা করতে পারে না। যেখানে বাড়ির প্রত্যেকে তাকে এটা বোঝানোর চেষ্টা করছে যে সেই এই কাজটা করেছে আর এবার এই দায়িত্বটা তাকেই নিতে হবে সেই জায়গায় তিতির মনে প্রাণে এটাই বিশ্বাস করছে সোমরাজ এতটা নিয়ন্ত্রণহীন কখনোই হতে পারে না।

তিতির অনেক রিস্ক নিয়ে হাসপাতালে গিয়ে এদিক ওদিক খোঁজ করতে থাকে। অনেক বাধার সম্মুখীন হতে হয় তিতিরকে। কিন্তু ভয় না পেয়ে শেষ পর্যন্ত দাদার সহায়তায় সে জানতে পারে রিপোর্টটা নেগেটিভ তুলি কনসিভ করেনি। এটা দেখে আনন্দে পাগল হয়ে যায় তিতির। তার মনের সমস্ত ধারণা সত্যি প্রমাণিত হয়।

তিতিরের ফোন ভেঙে দিল মালিনী

তারা যখন সেখান থেকে বের হতে চায় তখন কোন ভাবে দারোয়ান দরজা বন্ধ করে দিয়ে চলে গিয়েছিল। অনেক কষ্ট সেখান থেকে বেরোয় তারা। কিন্তু আগামী পর্ব দেখে মন খারাপ হয়ে যাবে দর্শকদের। আগামী পর্বে দেখানো হবে তিতিরের সামনে রাস্তায় দাঁড়িয়ে মালিনী। সে মিথ্যে মিথ্যে সোমরাজের নাম ধরে ডাকে, তিতির পিছনে ফিরতেই তার হাত থেকে ফোনটা ছুঁড়ে রাস্তায় ফেলে দেয় আর তারপর দিয়ে গাড়ি চলে যায়। ফোনের সাথে সাথে সমস্ত প্রমাণ গুঁড়ো হয়ে যায়। তিতির কষ্টে চিৎকার করে ওঠে। অন্যদিকে মালিনী হাসতে থাকে। এবার কি করবে তিতির?

Back to top button