সৃজনের সামনেই পর্ণাকে গঙ্গার জলে ফেলে দিল ঈশা! চিরতরে পর্ণা সৃজনকে আলাদা করে দিল সে!

জি বাংলার (Zee Bangla) জনপ্রিয় মেগা হল ‘নিম ফুলের মধু’ (Neem Phuler Modhu)। ধারাবাহিকটি দর্শকমনে ভালো জায়গা করে নিয়েছে। বর্তমানে সৃজন (Srijan) ও পর্ণার (Parna) ডিভোর্সের কেস চলছে কোর্টে। সৃজন প্রথমে তার ব্যবসা থেকেই পর্ণাকে সরিয়ে দেয়। পর্ণাকে ভুল বুঝে তাকে ডিভোর্স দেবে বলেও ঠিক করে। এরমাঝেই তাদের মাঝখানে এসে পরে ঈশা (Isha)।

ঈশা সৃজন ও পর্ণার ডিভোর্স করানোর জন্য উঠেপড়ে লাগে। ঈশা আসলে পর্ণার উপর প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য দত্ত বাড়ি থেকে পর্ণাকে তাড়িয়ে তার ব্যবসাকে হাতানোর চেষ্টায় রয়েছে। পর্ণা ঈশার মতলব আগে থেকেই জেনে গিয়েছে। আর এই ইশার হাতে হাত মিলিয়েছে কৃষ্ণাও। কৃষ্ণা আসলে জানে না যে ঈশা তার ছেলের ভালোর জন্য নয়, ক্ষতি করতে এসেছে।

আইনতভাবে পর্ণা ও সৃজন এখনও একসাথেই রয়েছে। সৃজন তাকে চলে যেতে বললেও পর্ণা ফিরে এসেছে। পর্ণা আসল কোনো না কোনওভাবে এই ডিভোর্স আটকানোর চেষ্টায় রয়েছে। তবে ঠাম্মি সর্বদা পর্ণার সাথে দিয়েছে। বর্তমানে দত্ত বাড়ি মজে উঠেছে পুজোর আনন্দে। দত্ত বাড়িতে প্রতিবারের মতোই পুজো হবে।

সেই পুজোতে ঠাম্মি চয়নের প্রেমিকা অর্থাৎ পর্ণার বন্ধু রুচিরাকেও এনেছে। সকলের আপত্তি থাকা সত্ত্বেও ঠাম্মির কথায় সেও সকলের সঙ্গে পুজোতে মেতে উঠেছে। ঈশা চেয়েছিল পর্ণা বাড়ি ছেড়ে চলে যাক। কিন্তু সেটা না হওয়ায় তার এখন অনেক রাগ। আর সেই রাগের বশেই পুজোর জন্য গঙ্গা স্নানে গেলে ঈশা চালাকি করে পর্ণাকে গঙ্গায় ধাক্কা মেরে ফেলে দেয়।

আরও পড়ুন: মোড় ঘোরানো প্রোমো! পূজা মন্ডপে সকলের সামনে শিমুলের গায়ে হাত পরাগের! ঢাল হয়ে দাঁড়ালো মধুবালা, পুজোর প্রেসিডেন্টকে দেখে চমকে গেল দুই ছেলে

পর্ণা জলে পরেই চিৎকার করতে লাগে। সে সামলাতে না পেরে ডুবতে থাকে। সৃজন পর্ণাকে ওরকম অবস্থায় দেখে ভয় পেয়ে যায়। সকলেই অবাক হয়ে যায়। তবে কি সৃজন বুঝে গেল যে ঈশাই পর্ণাকে ঠেলে ফেলেছে? কিভাবে উদ্ধার হবে জল থেকে পর্ণা? ঈশার জন্য কি তবে মৃত্যুর মুখে পর্ণা? ধারাবাহিকে আসছে ধামাকাদার পর্ব।

Back to top button