আকাশকে দেওয়া কথা রাখতে নিজেকে পাল্টে ফেললো সন্ধ্যা! গল্পের নয়া মোড়

স্টার জলসার (Star Jalsha) জনপ্রিয় একটি ধারাবাহিক হল ‘সন্ধ্যাতারা’ (Sandhyatara)। ধারাবাহিকটি দর্শকমনে ব্যাপক জায়গা করে নিয়েছে। ধারাবাহিকের মুলে নায়িকা চরিত্রে রয়েছে সন্ধ্যা (Sandhya)তারা (Tara), নায়ক চরিত্রে রয়েছে আকাশ (Akash)। আকাশ তারাকে ভালোবাসে। কিন্তু পরিস্থিতির চাপে পরে সে সন্ধ্যাকে বিয়ে করে। অন্যদিকে তারা মেজদি সন্ধ্যার জন্য আকাশকে ছেড়ে চলে যায়।

সম্প্রতি আকাশের সামনে তারার আসল পরিচয় এসেছে। সে বুঝে গিয়েছে, কেন তারা তাকে ছেড়ে চলে গিয়েছে। আর তাই আকাশ তারার উপর রাগ করে সন্ধ্যার উপর প্রতিশোধ নিতে চলেছে। আকাশের মনে ধীরে ধীরে সন্ধ্যা জায়গা করে নিলেও বর্তমানে সে আবার সন্ধ্যাকে সহ্য করতে পারছে না।

এদিকে সন্ধ্যা আকাশের প্রেমিকাকে দেখার জন্য উতলা হয়ে উঠেছে। সন্ধ্যা জানেই না যে, আকাশ যাকে ভালোবাসে সে আসলে তারই বোন তারা। এরমধ্যেই আকাশ তার প্রেমিকা হিসাবে একটি মেয়েকে সাজিয়ে আনে। তাকে সন্ধ্যার সামনে নয়নতারা বলে চেনায়। নয়নতারাকে দেখে সন্ধ্যা খেপে ওঠে। আকাশ সন্ধ্যাকে বাড়ি ছেড়ে চলে যেতে বলে।

সন্ধ্যা না যেতে চাইলে আকাশ তাকে কিছুদিনের সময় দেয়। সে সন্ধ্যাকে বলে, এরমধ্যে যদি সে নয়নতারার মতো হয়ে উঠতে পারে তাহলেই সে তার স্ত্রীর সম্মান পাবে। এরপর না চাইতেও সন্ধ্যা নয়নতারার কাছে ট্রেনিং শুরু করে। কিছুদিনের মধ্যেই সন্ধ্যা কলকাতার মেয়ের মতো স্মার্ট হয়ে ওঠে। তার পোশাক ও ব্যবহারে আসে পরিবর্তন।

চরিত্রে পরিবর্তন এলেও সন্ধ্যা ইংরেজিতে কথা বলতে পারে না। আর তখন তাকে পড়াশোনা শেখানোর দায়িত্ব নেয় বিজয়া মাঠান। নয়নতারা নামের মেয়েটি আকাশকে বলে যে সন্ধ্যা এসকল কিছু আকাশের জন্যই করেছে। সে আকাশকে খুবই ভালোবাসে। এই কথা শুনে ফের আকাশের মনে সন্ধ্যা জায়গা করে নেয়। তবে কি আকাশ সন্ধ্যাকে স্ত্রী রূপে মেনে নেবে? যদিও এসবকিছুই দর্শকদের অনুমান। আদোও কি হতে চলেছে তা জানা নেই।

 

 

Back to top button